Top banner
Language : Bengali | English
Quick Links
 

এশিয়ান ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ এর ৫ম সমাবর্তন অনুষ্ঠানে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের মহামান্য রাষ্ট্রপতি
তারিখ :


index photo

index photo


President
People's Republic of Bangladesh

বিসমিল-াহির রাহমানির রাহিম
সম্মানিত উপাচার্য প্রফেসর ড. আবুল হাসেম এম. সাদেক,
সম্মানিত সমাবর্তন বক্তা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড: আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক,
শ্রদ্ধেয় অনুষদ সদস্যবৃন্দ,
প্রিয় গ্রাজুয়েটবৃন্দ
এবং
উপসি\'ত সুধীমন্ডলী
আসসালামু আলাইকুম।
নবীন গ্রাজুয়েটদের আনুষ্ঠানিক ডিগ্রি প্রদানের লক্ষ্যে আয়োজিত ৫ম এশিয়ান ইউনির্ভাসিটি অব বাংলাদেশের ৫ম সমাবর্তনে আপনাদের মাঝে উপসি\'ত হতে পেরে আমি অত্যন@ আনন্দিত। সমাবর্তন বিশ্ববিদ্যালয় এবং গ্রাজুয়েটদের জন্য একটি স্মরণীয় অনুষ্ঠান। আমি অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানাই নবীন গ্রাজুয়েট, তাঁদের অভিভাবক এবং বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে। আমি মনে করি এই সমাবর্তন গ্রাজুয়েটদের বৃহত্তর কর্মজীবনে প্রবেশের দ্বার উন্মোচন করবে। আমি গ্রাজুয়েটদের সাফল্য কামনা করি।
সম্মানিত সুধী,
আপনারা জানেন শিক্ষা আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের চাবিকাঠি। বাংলাদেশ সরকার ‘সবার জন্য শিক্ষা’ নিশ্চিতকরণ ও মানবসমঙদ উন্নয়নে প্রাথমিক স@র থেকে উচ্চ শিক্ষা স@রে বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। শিক্ষাকে দারিদ্র্য বিমোচন ও উন্নয়নের প্রধান কৌশল হিসেবে গ্রহণ করায় তা জাতীয় জীবনে নতুন মাত্রা পেয়েছে। আমি জানতে পেরেছি দেশে উচ্চ শিক্ষার সুযোগ সৃষ্টি ও গুণগতমান উন্নয়নে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন কাজ করে যাচ্ছে। এ লক্ষে গৃহীত দঐরমযবৎ ঊফঁপধঃরড়হ ছঁধষরঃু ঊহযধহপবসবহঃ\'  প্রকল্প সরকারি ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার গুণগত মানোন্নয়নে অর্থবহ অবদান রাখবে বলে আমি মনে করি। সরকারের যুগোপযোগী পদক্ষেপের ফলে নারী শিক্ষার উন্নয়ন ও সমঙ্রসারণ হয়েছে। এর ফলে প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা স@রে মেয়েদের ভর্তির হার প-র্বের তুলনায় বেড়েছে। একটি সুস\' ও সুন্দর সমাজ গঠনে এটি একটি ইতিবাচক দিক বলে আমি মনে করি।

সম্মানিত সুধী,
দেশে উচ্চ শিক্ষার বিস@ারে বিশ্ববিদ্যালয়সম-হের ভূমিকা অপরিসীম। শিক্ষার্থীদের চিন@া-চেতনা, সৃজনশীলতা ও মেধা বিকাশের পাশাপাশি তাদের আন@র্জাতিক নাগরিক হিসেবে গড়ে তোলার ক্ষেত্রে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভূমিকা অত্যাধিক। প্রকৃত পক্ষে উচ্চ শিক্ষা কেবল পুঁথিগত বিদ্যার সীমিত পরিসরে আবদ্ধ নয়, বরং শিক্ষার্থীদের জ্ঞান-বিজ্ঞানের নবতর সৃষ্টির সাথে সংযোগ, মুক্ত আলোচনা, গঠনম-লক কার্যক্রমে সমঙৃক্ত ইত্যাদি কর্মকান্ডের কেন্দ্রবিন্দু হলো বিশ্বাবিদ্যালয়।  শিক্ষা ও গবেষণা কার্যক্রমের পাশাপাশি জাতি গঠনে বিশ্ববিদ্যালয়সম-হ ঐতিহাসিক ভূমিকা পালন করে যাবে বলে আমার বিশ্বাস। উচ্চ শিক্ষার সুযোগ সমঙ্রসারণে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় আজ অনেকটা পথ পাড়ি দিয়েছে। আমি আশা করবো বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলো গুণগত শিক্ষা প্রদানে তাদের সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখবে।

প্রিয় গ্রাজুয়েটবৃন্দ,
তোমাদের কৃতিত্বে আজ আমি গর্বিত। তোমরা আমার অভিনন্দন গ্রহণ করো। আজকের দিনটি নিশ্চয় তোমাদের কাছে, তোমাদের অভিভাবকের কাছে স্মরণীয়। কারণ সমাবর্তন তোমাদের অর্জনকে আনুষ্ঠানিকভাবে স্বীকৃতি দিচ্ছে। আজ আমি তোমাদের দুটি বিষয়ের উপর গুরুত্ব দেব। তা হলো আত্ম-জিজ্ঞাসা এবং দায়িত্ববোধ। গ্রীক দার্শনিক সক্রেটিসও নিজেকে জানার উপর গুরুত্ব আরোপ করেছিলেন। তাঁর \'কহড় িঞযুংবষভ\' আজো আমাদের অনুপ্রাণিত করে। তোমাদের আত্ম উপলব্ধি করতে হবে জ্ঞান অর্জনের যে মহান প্রত্যাশা নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রবেশ করেছিলে তা আজ কতটুকু প-রণ হয়েছে বা হয়নি। আত্ম-জিজ্ঞাসা থাকবে সারাজীবন, প্রতিটি কাজে। তা হলেই অর্জিত হবে সাফল্য। দ্বিতীয়ত দায়িত্ববোধকে সর্বদা জাগ্রত রাখবে, তুলে নেবে নিজের কাঁধে। মনে রাখবে যে দেশ ও জাতি আজ তোমাদের এ পর্যায়ে নিয়ে এসেছে তাদের প্রতি তোমাদের দায়বদ্ধতার শেষ নেই। জীবনের শেষ দিন পর্যন@ তোমরা তোমাদের কর্ম, চিন@া ও চেতনা দিয়ে সে ঋণ শোধ করে যাবে। সত্য, সুন্দর, মুল্যবোধ এবং দেশপ্রেম হবে তোমাদের চলার পরম পাথেয়। দশ বছর পর আমাদের মহান স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন@ী উদযাপিত হবে। সে সময়ের মধ্যে দেশকে সমৃদ্ধ দেশে পরিণত করতে তোমাদের অবদান রাখতে হবে। আমি তোমাদের জন্য দোয়া করি। তোমরা বড় হও-মানুষের মতো মানুষ হও।
পরিশেষে আমি সকলকে আবারো ধন্যবাদ জানিয়ে আমার বক্তব্য শেষ করছি।

খোদা হাফেজ, বাংলাদেশ চিরজীবী হোক।

Home | Contact us | Sitemap
© Copyright 2009, Bangabhaban - Bangladesh, all rights reserved.
Financed by Support to ICT Task Force (SICT) , Planing Division. Developed by : Ethics Advanced Technology Ltd. (EATL)